• শিরোনাম

    অফিস সহকারীর কাণ্ড!

    অগ্রবাণী ডেস্ক | ১৯ মার্চ ২০১৭

    অফিস সহকারীর কাণ্ড!

    শেরপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে তথ্য ই-সেবা কেন্দ্রে সেবা নিতে কেন্দ্রে কর্মরত অফিস সহকারী রফিকুল ইসলামের হাতে প্রহৃত হলেন এএসএম আব্দুর রশিদ মানিক নামে এক ব্যক্তি। এছাড়াও ওই অফিস সহকারী রাগের মাথায় অফিসের চেয়ার ও কম্পিউটারের কিছু অংশ ভাঙচুর করেন। অফিস সহকারির এমন কাণ্ডে উপস্থিত মানুষ হতবাক হয়ে পড়েন ও সেখানে মানুষের ভীড় জমে যায়। আজ রবিবার (১৯ মার্চ) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে বিচার চেয়ে জেলা প্রশাসকের কাছে লিখিত আবেদন করেছেন মানিক।

    অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, আজ দুপুরে শেরপুর শহরের সজবরখিলা এলাকার এএসএম আব্দুর রশিদ মানিক তথ্য ই-সেবা কেন্দ্রের ফ্রন্ট ডেস্কে যান জমির কাগজ তুলতে। এ সময় অফিসে রশিদ দেখিয়ে মানিক তার কাগজ চাইলে রাগান্বিত হয়ে ওঠেন চেয়ারে থাকা অফিস সহকারী রফিকুল ইসলাম। কিছু বুঝে ওঠার আগেই ফ্রন্ট ডেস্ক টপকিয়ে এসে তিনি মানিককে এলোপাতাড়ি মারপিট শুরু করেন। আশপাশের লোকজন ঠেকাতে আসলে প্রচন্ড রাগে তার অফিসের রক্ষিত কম্পিউটার ও চেয়ার ভাঙচুর করেন। এ নিয়ে তথ্য সেবা কেন্দ্রে সেবা নিতে আসা মানুষ ক্ষুব্দ হয়ে ওঠেন। পরে ওই অফিস সহকারী পালিয়ে আত্মরক্ষা করেন।

    খবর পেয়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এটিএম জিয়াউল ইসলামসহ অন্যান্য নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট তথ্য ই সেবা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন এবং ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন। এ নিয়ে জেলা প্রশাসক ড. মল্লিক আনোয়ার হোসেন জানান, অফিস সহকারী রফিকুল ইসলামের মাথায় সমস্যা আছে, গরম আসলেই রফিক এ রকম আচরণ করে বলে তিনি শুনেছেন। তাকে ইতোমধ্যেই ওই দপ্তর থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে এবং বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার আদেশ দেওয়া হয়েছে।

    -এলএস

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    বে-রসিক ইউএনও!

    ১২ মার্চ ২০১৭

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০
    ১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
    ১৮১৯২০২১২২২৩২৪
    ২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
  • ফেসবুকে daynightbd.com