• শিরোনাম

    উন্নয়ন চাইলে শেখ হাসিনাকে সমর্থন দিতে হবে: দোলন

    অনলাইন ডেস্ক | ২০ মার্চ ২০১৭

    উন্নয়ন চাইলে শেখ হাসিনাকে সমর্থন দিতে হবে: দোলন

    দেশের উন্নয়নের যে গতি তা অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনা ও তার সরকারকে আবার সমর্থন দিতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন কাঞ্চন মুন্সী ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান এবং ঢাকাটাইমস ও সাপ্তাহিক এই সময় সম্পাদক আরিফুর রহমান দোলন। তিনি বলেন, শেখ হাসিনার উন্নয়নের মহাসড়কে শরিক থাকতে হলে তাকে সমর্থন করতে হবে। শেখ হাসিনা সরকারে থাকলে দেশের কেউ উন্নয়নবঞ্চিত থাকবে না বলে মনে করেন তিনি।

    শনিবার ‍দুপুরে ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গার আটকবানায় এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। আটকবানা বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ছিলেন আরিফুর রহমান দোলন।

    ঢাকাটাইমস সম্পাদক বলেন, ‘আটকবানা একটি চরাঞ্চল। এই অঞ্চলের মধ্যে এটি সবচেয়ে সুবিধাবঞ্চিত এলাকা। এখানে এখনো অনেক রাস্তা কাঁচা রয়ে গেছে। বিদ্যুৎ পৌঁছায়নি।’ তিনি বলেন, ‘অবহেলিত এই অঞ্চল আর উন্নয়ন বঞ্চিত থাকবে না। এই এলাকাও উন্নয়নে শামিল হবে। বৃহত্তর ফরিদপুরে যেভাবে উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে তা এখানেও লাগবে’

    এ সময় দোলন জানান, এই অঞ্চলের উন্নয়নের জন্য তিনি সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায়ে যোগাযোগ করবেন। তিনি বলেন, ‘যত ধরনের উন্নয়ন, সেটা এলজিইডি হোক, উপজেলা পরিষদ হোক অথবা জেলা পরিষদের মাধ্যমে সব দিকে চেষ্টা চালাবো।’

    এলাকাবাসীর উদ্দেশ্যে আরিফুর রহমান দোলন বলেন, ‘উন্নয়নে শামিল হতে হলে আপনাদেরকে শেখ হাসিনা ও তাঁর সরকারকে আবার সমর্থন দিতে হবে। আগামীতে আবারো নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনতে হবে।’

    গত আট বছরে দেশ যখন উন্নয়নে অনেক এগিয়ে গেছে তখনও এই এলাকায় উন্নয়নের ছোঁয়া কেন লাগেনি এ ব্যাপারে তিনি প্রশ্ন রাখেন। তিনি বলেন, ‘হয়ত এই অঞ্চলের জনপ্রতিনিধি যার তারা পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর কথা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে তুলে ধরতে পারেননি। বঙ্গবন্ধু কন্যা জানলে অনেক আগেই এই অঞ্চলের মানুষের ভাগ্যের উন্নতি হতো।’

    দোলন বলেন, ‘আমি আপনাদের কথা দিচ্ছি, আপনাদের উন্নয়নের জন্য যা করার সবই করবো। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও স্থানীয় সরকার মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেনের কাছে আপনাদের কথা পৌঁছে দেব।’

    কাঞ্চন মুন্সি ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বলেন, ‘আপনারাই জানিয়েছেন, আপনাদের কথা শোনার জন্য এর আগে কেউ এই এলাকায় আসেনি। আমি আপনাদের কাছে ওয়াদা করে যাচ্ছি, আমি বারবার আপনাদের মাঝে ফিরে আসবো। জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের কথা বলতে আসবো। নৌকা মার্কায় ভোট চাইতে আসবো।’

    ঢাকাটাইমস সম্পাদক বলেন, ‘আমি রাজনীতি করি নিজের জন্য না, আপনাদের মতো সুবিধাবঞ্চিত অবহেলিত মানুষের কল্যাণের জন্য। আপনারা জানেন উন্নয়ন করতে হলে ব্যক্তির সক্ষমতা দিয়ে তা সম্ভব নয়, এজন্য রাজনীতির প্রযোজন আছে। রাজনীতি ও উন্নয়ন দুটি পরস্পরের জন্য প্রয়োজন। এ কারণেই আমি রাজনীতিতে সক্রিয় হচ্ছি।’

    আরিফুর রহমান বলেন, ‘বাংলাদেশের উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করছে জঙ্গিবাদ ও সাম্প্রদায়িকতা। এজন্য এগুলোর বিরুদ্ধে আমাদের রুখে দাঁড়াতে হবে। সব ষড়যন্ত্রের মোকাবেলায় শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে হবে।’

    সাখাওয়াত হোসেন সাকীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন আলফাডাঙ্গা উপজেলা চেয়ারম্যান জালাল উদ্দিন আহমেদ, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল কুদ্দুস খান, ফরিদপুর জেলা পরিষদ সদস্য শেখ শহীদুল ইসলাম, ২নং গোপালপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী এনামুল হাসান প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনায় ছিলেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সামিরা ইয়াসমিন, লিয়াকত হোসেন ও আরব আলী।

    অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে আরিফুর রহমান দোলনকে নিয়ে রচিত সঙ্গীত পরিবেশন করেন যশোর থেকে আগত শিল্পী এনায়েত হোসেন।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    বে-রসিক ইউএনও!

    ১২ মার্চ ২০১৭

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১  
  • ফেসবুকে daynightbd.com